এস্টন ভিলা (Everton)

ভিলেইনস খ্যাত এস্টন ভিলা’র জন্য তাদের নতুন মৌসুমের শুরুটা খুব একটা স্মরণীয় হয়নি। প্রথমত, যুবা কোচ স্টিভেন জেরার্ড তার দলের অধিনায়কত্বে পরিবর্তন এনে সমর্থকদের মধ্যে অস্থিরতার উদ্ভব করেন। সাবেক অধিনায়ক টাইরন মিংসকে মূল একাদশ থেকে বাইরে রেখে তিনি জন ম্যাকগিন এর উপর অধিনায়কত্বের দায়িত্ব সমর্পণ করেন।

এস্টন ভিলা তাদের মৌসুমের প্রথম ম্যাচে প্রিমিয়ার লীগের নিউ বয়েজ এএফসি বোর্নমাউথের নিকট এমন অসহায় ভঙিমায় হেরেছে যে তাতে ভিলা পার্কের ভিত্তিপ্রস্তরও নিশ্চিতরূপেই কেঁপে ওঠার কথা। তারা সেই ম্যাচটিতে স্পষ্টতই হট ফেভারিট হিসেবেই প্রবেশ করেছিল, কিন্তু ম্যাচটিতে তারা পরাজিত হওয়ার কারণে পুরো বার্মিংহ্যাম জুড়েই বিপদ সংকেত এর ধ্বনি প্রতিফলিত হয়েছে বলেই মনে হয়েছে। এর পেছনে সবচেয়ে বড় কারণটি হল যে, বোর্নমাউথের দলে কোনই পরীক্ষিত প্রিমিয়ার লীগ খেলোয়াড় নেই, এবং ট্রান্সফার উইন্ডোতেও তারা এ পর্যন্ত সম্পূর্ণই একটি নিষ্ক্রিয় ভূমিকা পালন করেছে। এমন দলের সাথে হেরে যাওয়াটা মোটেও কোন ভালো লক্ষণ নয়।

তবে, তাদের জন্য আশার বাণী হল যে, তাদের পরবর্তী প্রতিপক্ষ হল ফ্র‍্যাংক ল্যাম্পার্ডের এভারটন দল, যারা কি না নিজেরাও নতুন মৌসুমের একটি কঠিন আরম্ভ পার করছে। তবে, কমপক্ষে তারা চেলসি’র মত একটি শক্তিশালী দলের বিরুদ্ধে মাত্র ১-০ গোলের ব্যবধানেই হেরেছিল গত সপ্তাহে। সেই একটি গোলও এসেছিল পেনাল্টি স্পট থেকে, যা স্কোর করেছিলেন চেলসি মিডফিল্ডার জর্জিনহো।

 

এভারটন (Everton)

ফ্র‍্যাংক ল্যাম্পার্ড ও তার নতুনভাবে সাজানো এভারটন দল গত সপ্তাহে তাদের সিজনের প্রথম ম্যাচে চেলসি’র বিরুদ্ধে একটি শক্তিশালী পারফর্মেন্স প্রদর্শন করেও মাত্র ১-০ গোলের ব্যবধানে হেরে গিয়েছিল। অনানা ও কনোর কোডিকে কেনার পর তারা সপ্তাহজুড়ে নিজেদের দলটিকে আরো একটু শক্তিশালী করে নিয়েছে। যদিও তাদের নতুন সাইনিংদের দলটিতে মানিয়ে নেওয়ার জন্য আরো কিছুটা সময় প্রয়োজন হবে, তারপরও এমনটিই মনে হচ্ছে যে, এবারের এভারটন দল গত বছরের তুলনায় অনেকটাই শক্তিশালী হয়েছে।

পড়ুন:  মেক্সিকো বনাম পোল্যান্ড প্রিভিউ এবং প্রেডিকশনঃ আমেরিকান ক্লাসিকো'র পূর্বে মেক্সিকান'দের প্রস্তুতিমূলক ম্যাচ

যেহেতু তারা তাদের গত কয়েক বছরের তারকা ফরোয়ার্ড রিচার্লিসনকে টটেনহ্যাম হটস্পার্স এর নিকট হারিয়েছে, সেহেতু যে কেউ ভাববে যে হয়তো টফিস’রা এবার অনেকটাই দূর্বল হয়ে যাবে। আবার, অনেকে এটিও ভেবেছিল যে, রিচার্লিসনকে বিক্রি করে পাওয়া টাকা দিয়ে হয়তো এভারটন অন্যান্য অনেক খেলোয়াড় কিনবে। তবে, এগুলোর মধ্যে কোনটিই বাস্তবে রূপ নেয়নি।

এই ফিক্সচারটির অন্তর্ভুক্ত উভয় দলই যেহেতু তাদের পূর্ববর্তী ম্যাচে কোন পয়েন্ট সংগ্রহ করতে পারেনি, সেহেতু তারা উভয়ই চাইবে এই ম্যাচটিতে ভালো খেলে তিন পয়েন্ট নিয়েই ঘরে ফিরতে। নতুন মৌসুমটি বাজেভাবে শুরু করা এই দুই দল ম্যাচটিতে কিভাবে তাদের ক্রীড়ানৈপূণ্য প্রদর্শন করে তাই এখন শুধু দেখার বাঁকি।

 

প্রেডিকশন (Prediction)

ইংলিশ ফুটবলের দুই সাবেক মহারথী স্টিভেন জেরার্ড ও ফ্র‍্যাংক ল্যাম্পার্ডের মধ্যকার এই লড়াইয়ে আমরা কোন দলকেই এই মুহূর্তে এগিয়ে রাখতে পারছি না, বিধায় আমরা ধারণা করছি যে এই ম্যাচটি ড্র হবে।

এস্টন ভিলা ১ – ১ এভারটন

২.৫ গোলের নিম্নে

এস্টন ভিলা ০ (এশিয়ান হ্যান্ডিক্যাপ)

Share.
Leave A Reply