ব্রেন্টফোর্ড (Brentford)

তাদের সর্বশেষ ম্যাচে বিস খ্যাত ব্রেন্টফোর্ড লেস্টার সিটি’র বিপক্ষে ২-০ গোলে পিছিয়ে পড়েও ম্যাচটি ২-২ গোলে ড্র করতে সক্ষম হয়, এবং কিং পাওয়ার স্টেডিয়াম থেকে একটি গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্ট নিয়ে ঘরে ফিরে আসে।

ব্রেন্টফোর্ড দলটির খেলাগুলি সবসময়ই বেশ মজার এবং উপভোগ্য হয়ে থাকে। তাদের দলের অর্থনৈতিক সক্ষমতা আকাশচুম্বী না হলেও তারা এমন এমন খেলোয়াড়দেরকেই কিনেন, যারা খুবই গতিশীল ও আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলতে পারদর্শী। এছাড়া, গত উইকেন্ডের খেলাটি থেকে আমরা আবারো বুঝতে পেরেছি যে, তাদের মানসিক শক্তিমত্তাও বেশ প্রশংসনীয়।

এছাড়াও, তারা কিছুদিন আগেই তাদের মিডফিল্ডকে আরো শক্তিশালী করে নিয়েছে একটি নতুন সাইনিং এর মাধ্যমে। প্রায় ১৭ মিলিয়ন ইউরোর বিনিময়ে তারা ইতালিয়ান ক্লাব স্যাম্পদোরিয়া থেকে কিনেছে ড্যানিশ মিডফিল্ডার মিকেল ড্যামসগার্ডকে।

এই উদীয়মান প্রতিভাকে ব্রেন্টফোর্ড কিনেছে তারই স্বদেশী আরেক অ্যাটাকিং মিডফিল্ডার ক্রিশ্চিয়ান এরিকসেন এর বদলি হিসেবে, যিনি কি না সম্প্রতি প্রিমিয়ার লীগে তাদের পরবর্তী প্রতিপক্ষ ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডে যোগ দিয়েছেন। 

ব্রেন্টফোর্ড চাইবে তাদের শোচনীয় অবস্থায় থাকা প্রতিপক্ষ অর্থাৎ রেড ডেভিলদের উপর আরো বেশি চাপ তৈরি করতে, যখন তারা এরিক তেন হাগের শিষ্যদের আগামী শনিবার বিকেলে আমন্ত্রণ জানাবে তাদের জি-টেক কমিউনিটি স্টেডিয়ামে।

 

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড (Manchester United)

এরিকে তেন হাগের জন্য প্রিমিয়ার লীগের স্বাগতম ধ্বনিটি হয়তো এর চেয়ে বেশি নির্মম আর হতেই পারতো না, কারণ গত সপ্তাহে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের হয়ে তার প্রথম প্রতিযোগিতামূলক ম্যাচেই তার দল থিয়েটার অব ড্রিমস খ্যাত ওল্ড ট্রাফোর্ডে ব্রাইটন এন্ড হোভ এলবিয়ন এর বিরুদ্ধে ১-২ গোলে পরাজিত হয়েছে।

পুরো প্রাক মৌসুম প্রস্তুতি জুড়েই ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড জ্বেলেছিল আশার প্রদীপ, খেলেছিল খুবই আত্মবিশ্বাসের সাথে, এবং বেশ তুখোর ভঙিমায়। তার ফলে অনেকেই প্রত্যাশা করেছিল যে, রেড ডেভিলরা একটি জয়ের মধ্য দিয়েই নতুন মৌসুমটির শুরু করবে, তাও আবার এমন একটি দলের বিরুদ্ধে যারা কি না তাদেরকে গত মৌসুমের শেষ ম্যাচে ৪-০ গোলে নাকানিচুবানি খাইয়েছিল। কিন্তু, সেসকল প্রত্যাশা বাস্তবে রূপ নেয়নি।

পড়ুন:  ম্যানচেস্টার সিটি বনাম এএফসি বোর্নমাউথ প্রিভিউ এবং প্রেডিকশন - ১৩/০৮/২০২২

তাদের সর্বশেষ ম্যাচটিতে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড বাচ্চাদের মত খেলেছে, এবং বেশ কিছু স্কুলবয় মিসটেক উপহার দিয়েছে। এছাড়া, আক্রমণভাগে বল পাঠানোর ক্ষেত্রেও তারা প্রচন্ড ঢিলেমি বা অলসতার পরিচয় দিয়েছে। এরিক তেন হাগ যে প্রকার প্রেসিং ফুটবল প্রমোট করে থাকেন, সেটিও আমরা পূর্ণাঙ্গভাবে দেখতে পাইনি এই ম্যাচটিতে।

এর পরে রেড ডেভিলদের পরবর্তী চ্যালেঞ্জ অপেক্ষা করছে লন্ডনে, ব্রেন্টফোর্ড এর বিরুদ্ধে ম্যাচটিতে। এই ম্যাচের মধ্য দিয়ে ক্রিশ্চিয়ান এরিকসেন তার সদ্য বিদায়ী ক্লাবে প্রত্যাবর্তন করবেন। যেহেতু, এই ম্যাচটির পরেই তাদেরকে লিভারপুলের মুখোমুখি হতে হবে, সেহেতু ব্রেন্টফোর্ডের বিরুদ্ধে পয়েন্ট হারালে তাদেরকে অনেক বড় মাশুল দিতে হতে পারে।

 

প্রেডিকশন (Prediction)

ব্রাইটন এর নিকট বাজেভাবে হারার পর ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড এখন পুরোপুরিভাবে মরিয়া তাদের পরবর্তী ম্যাচে ভালো করার জন্য। অন্যদিকে, যেহেতু ব্রেন্টফোর্ড তাদের দলটিকে এখনো গুছিয়ে নেওয়ার প্রক্রিয়ায় রয়েছে, সেহেতু আমরা মনে করছি যে, ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড এই ম্যাচটিতে একটি গোল হজম করলেও শেষ পর্যন্ত তারা ম্যাচটি জিতবে।

 

ব্রেন্টফোর্ড ১ – ৩ ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড

২.৫ গোলের বেশি

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড -১.০ (এশিয়ান হ্যান্ডিক্যাপ)

Share.
Leave A Reply