প্রেডিকশন (Prediction)

ফুলহ্যাম ২ – ১ নিউক্যাসেল ইউনাইটেড

২.৫ গোলের উর্ধ্বে

ফুলহ্যাম +১.০ (এশিয়ান হ্যান্ডিক্যাপ)

 

গুরুত্বপূর্ণ দিকসমূহ (Key notes)

  • এবারের মৌসুমে তাদের উদ্বোধনী ম্যাচে নটিংহ্যাম ফরেস্টকে ২-০ গোলে হারানোর পর থেকে নিউক্যাসেল ইউনাইটেড প্রিমিয়ার লীগে আর একটি ম্যাচেও জয়লাভ করতে পারেনি (৫টি ড্র, ১টি পরাজয়)। ২০২১ সালের নভেম্বর মাসের পর থেকে এবারই তারা জয়হীন অবস্থায় সবচেয়ে বেশি ম্যাচ পার করল (১৪)। তাদের সেই ১৪টি ম্যাচের মধ্যে নতুন ম্যানেজার হিসেবে এডি হাও এর তত্ত্বাবধানে খেলা প্রথম তিনটি ম্যাচও ছিল (২টি ড্র, ১টি পরাজয়)।
  • ফুলহ্যাম তাদের সর্বশেষ ৫টি ম্যাচের মধ্যে ৩টি ম্যাচেই জয়ের স্বাদ পেয়েছে (২টি পরাজয়)। এর আগে অবশ্য প্রিমিয়ার সমান সংখ্যক জয় হাসিল করতে তাদের সর্বমোট ৩০টি ম্যাচ অপেক্ষা করতে হয়েছিল (১৪টি ড্র, ১৩টি পরাজয়)। এবার কটেজারদের সামনে একটি সূবর্ণ সুযোগ এসেছে ২০১২-১৩ মৌসুমের পর থেকে প্রথমবারের মত কোন মৌসুমের প্রথম ৮টি ম্যাচের মধ্য থেকে ৪টিতেই জয় হাসিল করে নেওয়ার। সেই ২০১২-১৩ মৌসুমই হল এমন সর্বশেষ মৌসুম, যেখানে ফুলহ্যাম প্রিমিয়ার লীগ থেকে রেলিগেটেড হয়েছিল না। সেবার তারা লীগ টেবিলের ১২তম পজিশনে থেকে মৌসুম শেষ করেছিল।
  • নিউক্যাসেল ইউনাইটেড এবারের মৌসুমে প্রিমিয়ার লীগের সকল দলের মধ্যে সবচেয়ে বেশি হাই টার্নওভার অর্জন করতে পেরেছে। টার্নওভার হল খেলার এমন সব সিকুয়েন্স যা প্রতিপক্ষের গোলপোস্টের ৪০ মিটারের অভ্যন্তরে অনুষ্ঠিত হয়। এমন টার্নওভারের সংখ্যা বর্তমানে নিউক্যাসেলের নিকট রয়েছে ৮০টি। প্রকৃতপক্ষে, এডি হাও এর দল এবারের মৌসুমে প্রতি ম্যাচে গড়ে ১১.৪টি করে টার্নওভার সম্পন্ন করেছে, যেখানে গত মৌসুমে প্রতি ম্যাচে তাদের গড় টার্নওভার ছিল ৬.৭টি করে।

 

ফর্ম বিবরণী (Form Guide)

ফুলহ্যামঃ জয় – পরাজয় – জয় – পরাজয় – জয়

নিউক্যাসেল ইউনাইটেডঃ ড্র – ড্র – পরাজয় – ড্র – ড্র

পড়ুন:  সুইজারল্যান্ড বনাম ক্যামেরুন প্রিভিউ এবং প্রেডিকশনঃ বুদ্ধি এবং দম এর মধ্যকার একটি শ্বাসরুদ্ধকর লড়াইয়ের অপেক্ষা

 

ম্যাচটি সম্পর্কে কিছু তথ্য (Game Facts)

  • ফুলহ্যাম প্রিমিয়ার লীগে নিউক্যাসেল ইউনাইটেডের বিপক্ষে তাদের খেলা ২৮টি ম্যাচের মধ্যে ১২টিতে জয়লাভ করতে সক্ষম হয়েছে (৫টি ড্র, ১১টি পরাজয়)। প্রতিযোগিতাটিতে তারা এর চেয়ে বেশি সংখ্যক জয় আর কোন দলের বিপক্ষেই অর্জন করতে পারেনি (বল্টনের বিরুদ্ধেও তাদের সর্বমোট ১২টি জয় রয়েছে)।
  • নিউক্যাসেল ইউনাইটেড কটেজারদের বিরুদ্ধে তাদের খেলা সর্বশেষ দুইটি অ্যাওয়ে ম্যাচেই জয়ের দেখা পেয়েছে। তার আগে অবশ্য তারা ক্রেভেন কটেজে তাদের টানা ৬টি সফরেই পরাজয়ের শিকার হয়েছিল। এছাড়া, তাদের ইতিহাসে কখনোই তারা প্রিমিয়ার লীগে ফুলহ্যামের বিরুদ্ধে টানা তিনটি অ্যাওয়ে ম্যাচে জয়লাভ করতে পারেনি।

 

যেসকল গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়দের উপর সবার নজর থাকবে (Key players to watch out for)

আলেকজান্ডার মিত্রোভিচ – ফুলহ্যাম (Aleksandr Mitrovic – Fulham)

সার্বিয়ান এই স্ট্রাইকার এবারের মৌসুমে দারুণ ফর্ম পার করছেন, এবং ফুলহ্যামের সবকটি জয়ে বা ড্রয়েই তার বিশাল বড় অবদান রয়েছে। ইতিমধ্যে তিনি বর্তমান মৌসুমে ৬টি গোলও করে ফেলেছেন।

 

আলেকজান্ডার ইসাক – নিউক্যাসেল ইউনাইটেড (Alexander Isak – Newcastle United)

এই লিকলিকে সুইডিশ ফরোয়ার্ড অনেক বড় অঙ্কের টাকার বিনিময়ে ম্যাগপাই শিবিরে যোগ দেওয়াতে তার উপর প্রত্যাশার চাপও কিছুটা বেশি। তবে, তিনি তার প্রিমিয়ার লীগ ক্যারিয়ারের একরকম শুভ সূচনাই করেছেন বলতে হয়, কারণ এ পর্যন্ত দুইটি ম্যাচ খেলে তার গোল সংখ্যাও দুই। নিউক্যাসেলকে জয়ের ধারায় ফেরাতে হলে তাকে একটি বড় ভূমিকা পালন করতে হবে।

Share.
Leave A Reply