প্রেডিকশন (Prediction)

এস্টন ভিলা ০ – ২ ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড

২.৫ গোলের নিম্নে

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড -১.০ (এশিয়ান হ্যান্ডিক্যাপ)

গুরুত্বপূর্ণ দিকসমূহ (Key Notes)

  • এস্টন ভিলা সমর্থকরা হয়তো ভেবেছিলেন যে নতুন ম্যানেজার আসায় তাদের দলে একটি পোস্ট-ম্যানেজার অনুভূতি তৈরি হয়েছে, এবং এবার তাদের দল নিজেদের স্বভাবসুলভ চরিত্রে ফিরবে। তবে, দুঃখজনকভাবে তারা সম্মুখীন হয় এক হিংস্র নিউক্যাসেল ইউনাইটেড দলের, যারা তাদেরকে খেলার তেমন সুযোগই দেয়নি, এবং এক এক করে মোট ৪টি গোল স্কোর করেছে।
  • মার্কাস র‍্যাশফোর্ড এর পাওয়ার হেডারের উপর ভর করে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড তাদের সর্বশেষ ম্যাচে ওল্ড ট্রাফোর্ডে ওয়েস্ট হ্যাম ইউনাইটেডকে হারিয়ে দিয়ে এরিক তেন হাগ এর অধীনে নিজেদের ভালো ফলাফলের সুন্দর ধারাটিকে বজায় রাখতে সক্ষম হয়েছে। ম্যাচের সেই একমাত্র গোলটি ছিল মার্কাস র‍্যাশফোর্ড এর ম্যান ইউ ক্যারিয়ারের ১০০তম গোলও বটে।

ফর্ম বিবরণী (সর্বশেষ ৫টি ম্যাচ) [Form Guide (Last 5 matches)]

এস্টন ভিলাঃ পরাজয় – জয় – পরাজয় – পরাজয় – ড্র

ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডঃ জয় – ড্র – জয় – ড্র – জয়

ম্যাচটি সম্পর্কিত কিছু তথ্য (Match Facts)

  • এস্টন ভিলা মাত্র ১২ পয়েন্ট নিয়ে বর্তমানে প্রিমিয়ার লীগ টেবিলের ১৬তম পজিশনে অবস্থান করছে। অন্যদিকে, সমান ম্যাচ খেলে ২৩ পয়েন্ট নিয়ে তাদের পরবর্তী প্রতিপক্ষ ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড রয়েছে টেবিলের ৫ম স্থানে।
  • এই দুই দলের মধ্যকার সর্বশেষ ম্যাচটিতে ব্রাজিলিয়ান ম্যায়েস্ট্রো ফিলিপ কুটিনহো এস্টন ভিলা’র হয়ে অভিষিক্ত হয়েছিলেন। তার করা ডেব্যু গোল ও এসিস্ট এর উপর ভর করে এস্টন ভিলা একটি অসাধারণ কামব্যাক করে, এবং ম্যাচটি ২-২ গোলে ড্র করে।

যেসকল গুরুত্বপূর্ণ খেলোয়াড়দের উপর সবার নজর থাকবে (Key players to watch out for)

ড্যানি ইংস – এস্টন ভিলা (Danny Ings – Aston Villa)

এবারের মৌসুমের শুরু থেকেই স্টিভেন জেরার্ড এই সাবেক লিভারপুল স্ট্রাইকারকে বেশির ভাগ সময়ই সাবস্টিটিউট হিসেবে মাঠে নামাচ্ছিলেন, তবে জেরার্ড চাকরিচ্যুত হওয়ার পর যখন তিনি প্রথম একটি ম্যাচে স্টার্ট করার সুযোগ পান, তখনই তিনি জোড়াগোল করে সবাইকে দেখিয়ে দেন যে, এতদিন তাকে মূল একাদশে না রেখে কত বড় ভুল তারা করেছে।

পড়ুন:  ম্যানচেস্টার সিটি বনাম নিউক্যাসল এফএ কাপ রিপোর্ট

লিসান্দ্রো মার্তিনেজ – ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড (Lisandro Martinez – Manchester United)

শুরুতে তাকে খুব একটা গুণসম্পন্ন মনে না হলেও এবং তাকে নিয়ে অনেকেই বিদ্রুপ করলেও, প্রিমিয়ার লীগ মৌসুমের ১২টি ম্যাচ পর এসে দেখা যাচ্ছে যে, আর্জেন্টাইন দেয়াল খ্যাত এই রেড ডেভিল সত্যিই একজন আকর্ষণীয় ফুটবলার। তার এগ্রেসিভ ডিফেন্ডিং এবং নিখাদ পাসিং এর উপর ভর করেই ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের ক্লিন শিটের সংখ্যা বৃদ্ধি পেয়েছে।

Share.
Leave A Reply