প্রেডিকশন (Prediction)

কাতার ১ – ১ ইকুয়েডর

ভেন্যুঃ আল বাইত স্টেডিয়াম

বিশ্বকাপ ফুটবলের ইতিহাসের ২২তম আসরের হোস্ট নেশন এবং প্রথমবারের মত ফিফা বিশ্বকাপে অংশগ্রহণকারী দল কাতার ঘরের মাটিতে তাদের প্রথম বিশ্বকাপ ম্যাচে মুখোমুখি হবে দক্ষিণ আমেরিকার দল ইকুয়েডরের, যারা কি না তাদের ইতিহাসের চতুর্থ বিশ্বকাপ আসরে খেলতে চলেছে। উভয় দলই প্রচুর আশা এবং স্বপ্ন নিয়ে এবারের বিশ্বকাপে প্রবেশ করছে, কিন্তু তাদের সমর্থকরা নিশ্চয়ই তাদের দলের উপর খুব বেশি প্রত্যাশা করে বসে নেই। এই বিশ্বকাপে উভয় দলেরই হারানোর কিছুই নেই, তাই তারা নিশ্চিন্ত হয়ে নিজেদের খেলাটি খেলতে পারবে, এবং কোনভাবে গ্রুপ পর্যায় পার করতে পারলেই তারা প্রচন্ড খুশি হবে, বিশেষ করে কাতার। বিশ্বকাপের শুরুতেই এই লো প্রোফাইল ম্যাচটিতে উভয় দলই তাদের স্বভাবসুলভ বিনোদনমূলক ফুটবলই উপহার দিতে চাইবে।

ফর্ম বিবরণীঃ কাতার (Form Guide: Qatar)

কাতার এবারের বিশ্বকাপের পূর্বে খেলা তাদের সবশেষ ৫টি প্রস্তুতি ম্যাচের মধ্যে কেবলমাত্র একটিতেই হেরেছে। তবে, সেই ৫ ম্যাচের মধ্যে তারা জিতেছেও একটিতেই, এবং বাকি তিনটি ম্যাচেই তারা ড্র করেছে। তবে, আমরা যদি তাদের সর্বশেষ ৬টি ম্যাচকে গণণায় ধরি, তাহলে তার মধ্যে তারা দুইটিতে জয়লাভ করেছে। জয় দুইটি এসেছে বুলগেরিয়া এবং গুয়াতেমালা’র বিপক্ষে, যারা উভয়েই ফিফা বিশ্ব র‍্যাংকিংয়ে কাতারের থেকে উপরে অবস্থান করছে।

তবে, কাতারের ব্যাপারে একটি কথা না বললেই নয়, এবং সেটি হচ্ছে যে, তারা যেকোন দলের বিপ্পক্ষেই আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলে থাকে, যা সত্যিই প্রশংসনীয়, এবং গ্যালেরিতে বসা হাজারো কাতারী দর্শক সেটি দেখে প্রচুর বিনোদন নিতে পারবেন।

ফর্ম বিবরণীঃ ইকুয়েডর (Form Guide: Ecuador)

দক্ষিণ আমেরিকার উদীয়মান দল ইকুয়েডর অবশ্য তাদের খেলা সর্বশেষ ৬টি ম্যাচেই অপরাজিত রয়েছে, যা বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে তাদের প্রতিপক্ষ স্বাগতিক কাতারকে অনেক ভাবাবে। এখানে এটিও উল্লেখ্য যে, কাতার সাম্প্রতিক কালে যে পর্যায়ের দলগুলির বিপক্ষে খেলেছে, ইকুয়েডর তার চেয়ে অনেক বেশি মানসম্পন্ন সব দলের বিপক্ষে তাদের প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছে, যেমন নাইজেরিয়া, আর্জেন্টিনা, মেক্সিকো, জাপান ইত্যাদি।

পড়ুন:  ব্রাইটন এন্ড হোভ এলবিয়ন বনাম এএফসি বোর্নমাউথ প্রিভিউ এবং প্রেডিকশন: ইউরোপীয় প্রতিযোগিতায় নাম লেখানোর জন্য মরিয়া সিগালস'রা

এর মানে হচ্ছে, তাদের বিশ্বকাপের প্রস্তুতই কাতারের থেকে বেশ খানিকটাই ভালো হয়েছে। এছাড়া, কাউন্টার অ্যাটাকিং বা পাল্টা আক্রমণে খেলায় তারা অত্যন্ত পারদর্শী, যা কাতারসহ বিশ্বকাপের গ্রুপ ‘এ’ তে অবস্থিত সকল দলকেই অনেক ভাবাবে।

ম্যাচটিতে যা যা ঘটতে পারে (How the game could go)

উভয় দলের ইতিহাসে তারা ৪র্থ বারের মত একে অপরের মুখোমুখি হতে চলেছে। এর আগে যে তিনবার তারা একে অন্যের বিপক্ষে খেলেছে, সেই ম্যাচ তিনটির ফলাফলের উপর ভিত্তি করে কোন একটি দলকে এগিয়ে রাখা সম্ভব নয়, কারণ তারা উভয়েই একটি করে ম্যাচ জিতেছে, আর বাকি একটি ম্যাচ হয়েছে ড্র। সেই ইতিহাসের পরিপ্রেক্ষিতেই আমাদের মনে হয় এই ম্যাচটিও ড্র হবে, কেননা উভয় দলই তাদের প্রথম ম্যাচে না হারার চেষ্টাটাই করবে।

Share.
Leave A Reply