প্রেডিকশন (Prediction)

স্পেন ২ – ১ জার্মানি

ভেন্যুঃ আল বাইত স্টেডিয়াম

এ বছরের কাতার বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্যায়ের সবচেয়ে প্রতীক্ষিত এবং হাই-প্রোফাইল ম্যাচ হল এটি, কারণ গ্রুপ ‘ই’ এর এই ম্যাচে মুখোমুখি হতে চলেছে ইউরোপের দুই মহারথী এবং সর্বশেষ তিনটি বিশ্বকাপের মধ্যে দুইটির বিজয়ী দল স্পেন এবং জার্মানি।

এই দুই দলের প্রত্যেকেই গত কয়েক বছর ধরে একই রকম পথে চলেছে। তারা উভয়েই বিশ্বকাপের শিরোপা জিতে সাফল্যের চূড়ায় যেমন পৌঁছেছে, ঠিক তেমনি তার পরের বিশ্বকাপে গ্রুপ পর্যায় থেকেই বিদায় নিয়ে লজ্জারও শিকার হয়েছে।

উভয় দলই বেশ কয়েক বছর ধরে অনিশ্চয়তার মধ্য দিয়ে পথচলা সম্পন্ন করেছে, এবং যুবা রক্তের উপর ভর করে আবারো নিজেদের হারানো ফুটবলীয় সাম্রাজ্যকে তিলে তিলে পুনঃগঠন করেছে। এখন আবারও তারা বিশ্বের সবচেয়ে বড় দুইটি ফুটবলীয় রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। এবার শুধু গল্পের ক্লাইম্যাক্স এর অপেক্ষা! যে জিতবে এবারের বিশ্বকাপ, তার গল্পই পাবে পরিপূর্ণতা।

ফর্ম বিবরণীঃ স্পেন (Form Guide: Spain)

এবারের বিশ্বকাপে প্রবেশের আগে স্পেন এর রেকর্ড বেশ ভালো। চলতি বছরে মোট ৮টি ম্যাচ খেলে স্প্যানিশ’রা জয়লাভ করতে পেরেছে মোট ৫টিতে, ২টিতে করেছে ড্র, এবং পরাজিত হয়েছে মাত্র একটিতে। এ সময়কালে তারা মোট ১৫টি গোল করতে সক্ষম হয়, এবং তাদের ৫টি জয়ের মধ্যে ৪টিতেই তারা ক্লিন শিটও রাখতে সমর্থ হয়।

এছাড়া, ২০২২ সালে খেলা তাদের সবকটি ম্যাচেই গোল করতে সক্ষম হয়েছে লুইস এনরিকে’র দলটি, তা সেসব ম্যাচে তারা জিতুক, হারুক, আর ড্র’ই বা করুক না কেন। তাদের দলের বিভিন্ন অংশ থেকে গোল আসে, এবং তাদের বিরুদ্ধে প্রতিপক্ষ দল সহজে গোলও করতে পারে না — বিশ্বকাপ শিরোপা জয়ের এই দুইটি প্রধান মূলমন্ত্রই তাদের ক্ষেত্রে প্রযোজ্য।

ফর্ম বিবরণীঃ জার্মানি (Form Guide: Germany)

কাতার বিশ্বকাপ ২০২২ এ প্রবেশের পূর্বে জার্মানির সার্বিক ফর্ম মোটেও আশাব্যঞ্জক নয়। ২০২২ সালে মোট ৮টি ম্যাচ খেলে তারা কেবলমাত্র দুইটিতেই জয়ের দেখা পেয়েছে। এর মধ্যে আরো রয়েছে ৫টি ড্র (যার মধ্যে ছিল ১-১ স্কোরলাইনের টানা ৪টি ড্র), এবং একটি পরাজয়।

পড়ুন:  আর্সেনাল বনাম বোর্নেমাউথ: গানাররা জয়ের দৌড় চালিয়ে যেতে

এ সময়কালে তারা সসম্মানজনকভাবে ১৪টি গোল করেছে, কিন্তু বিনিময়ে মোট ১০টি গোল হজমও করেছে, যা বিশ্বকাপে প্রবেশের পূর্বে তাদেরকে বেশ খানিকটা ভাবাবে। নিজেদের ৫ম বিশ্বকাপ শিরোপা জেতার স্বপ্ন টিকিয়ে রাখতে হলে তাদেরকে অবশ্যই নিজেদের দলের দূর্বলতাগুলিকে যথাসম্ভব তাড়াতাড়ি ঘোঁচাতে হবে।

ম্যাচটিতে যা যা ঘটতে পারে (How the game could go)

ম্যাচটি ট্যাকটিকালি খুবই প্রতিযোগিতামূলক একটি ম্যাচ হতে চলেছে, এবং সেখানে উভয় দলই তাদের প্রতিপক্ষকে বুদ্ধি দিয়ে হারানোর চেষ্টা করবে। তবে, শেষ পর্যন্ত আমাদের মতে এই ম্যাচটির ফলাফল স্পেনের পক্ষেই যাবে, ঠিক যেভাবে তাদের পক্ষে রয়েছে এই দুই দলের মধ্যকার হেড টু হেড রেকর্ড। এর আগে ৭ বার স্পেনের মুখোমুখি হয়ে একবারও জয়ের দেখা পায়নি জার্মানরা, এবং এই ম্যাচেও সেটিরই পুনরাবৃত্তি দেখা যাবে বলেই আমরা মনে করি।

Share.

Leave A Reply