প্রেডিকশন (Prediction)

    নেদারল্যান্ডস ৪ – ০ কাতার

    ভেন্যুঃ আল বাইত স্টেডিয়াম

    গ্রুপ পর্যায়ের তৃতীয় ও শেষ রাউন্ডের এই ম্যাচটিতে গ্রুপ ফেভারিটস নেদারল্যান্ডস মুখোমুখি হবে গ্রুপ মিনৌজ এবং বিশ্বকাপের স্বাগতিক দেশ কাতারের। ডাচ জাতীয় দল এই ম্যাচটিতে জয় তুলে নিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হিসেবে পরের রাউন্ডে ওঠার পরিকল্পনাই করবে, এভং অন্যদিকে কাতার চাইবে তাদের সবশেষ বিশ্বকাপ ম্যাচে নিজেদের দর্শকদের সামনে একটি ভালো পারফর্মেন্স উপহার দিতে।

    ফর্ম বিবরণীঃ নেদারল্যান্ডস (Form Guide: Netherlands)

    ২০১৮ রাশিয়া বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করতে না পারার পর থেকে নেদারল্যান্ডস একটি অসাধারণ কামব্যাক করে, এবং আবারো বিশ্বের শ্রেষ্ঠ ফুটবলীয় পরাশক্তিদের মধ্যে নিজেদের নামটি লেখায়।

    অরানিয়া খ্যাত নেদারল্যান্ডস জাতীয় দল গত এক বছরের বেশি সময় ধরে অপরাজিত রয়েছে, এবং বিশ্বকাপে আসার পূর্বে তাদের সর্বশেষ ১৫টি ম্যাচের একটিতেও তারা হারেনি। এই সময়কালে তারা দুইটি ম্যাচে কমপক্ষে ৬টি করে, তিনটি ম্যাচে কমপক্ষে ৪টি করে, এবং ৩টি ম্যাচে ৩টি করে গোল করতে সক্ষম হয়েছে।

    তারা বিশ্বকাপের জন্য খুবই যুতসই একটি আক্রমণভাগের অধিকারী, এবং আগামী ২৯ই নভেম্বর এই ম্যাচটিতে সহজ একটি জয়ের মধ্য দয়ে তারা পরের রাউন্ডে খেলা নিশ্চিত করবে বলেই আমাদের ধারণা।

    ফর্ম বিবরণীঃ কাতার (Form Guide: Qatar)

    এবারের বিশ্বকাপে কাতার খুবই কঠিন সময় পার করবে। তারা এবারই তাদের প্রথম বিশ্বকাপে অংশ নিচ্ছে, এবং সেই কৃতিত্বটিও তারা অর্জন করেছে টুর্নামেন্টের স্বাগতিক দল হওয়ার মধ্য দিয়েই। তাদের উপর কারোই তেমন কোন প্রত্যাশা নেই, এবং যে কারো মতেই তারা এবারের বিশ্বকাপের গ্রুপ পর্যায় থেকে বিদায় নিতে চলেছে।

    বিশ্বকাপে প্রবেশের পূর্বে কাতার বেশ স্থিতিশীল ফর্ম প্রদর্শন করেছে। তাদের খেলা সর্বশেষ ৫টি ম্যাচের মধ্যে তারা ২টিতে জয়লাভ করেছে, ২টিতে পরাজয় বরণ করেছে, এবং একটিতে করেছে ড্র। সেই ২টি পরাজয়ের মধ্যে একটি পরাজয় এসেছিল ক্রোয়েশিয়ার অনূর্ধ্ব ২৩ দলের বিপক্ষে।

    পড়ুন:  ওয়েস্ট হ্যাম বনাম অ্যাস্টন ভিলা: হ্যামাররা রেলিগেশন ডগ-ফাইটে থাকবে

    যেহেতু তারা একটি দেশের অনূর্ধ্ব ২৩ দলের বিপক্ষেই জয় হাসিল করতে পারছে না, সেহেতু বিশ্বকাপের মত একটি বিশাক মঞ্চে তারা খুব ভালো কিছু অর্জন করতে পারবে এমনটি ভাবাও বোকামি।

    ম্যাচটিতে যা যা ঘটতে পারে (How the game could go)

    নেদারল্যান্ডস নিশ্চয় এই ম্যাচটিতে একটি সহজ জয় তুলে নিয়ে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হিসেবেই পরের রাউন্ডে যেতে চাইবে, এবং সেজন্য তারা এই ম্যাচে যতগুলি সম্ভব গোল করতে চাইবে। যত বেশি গোল, গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার সম্ভাবনাও ততই বেশি।

    কাতারের জন্য হতাশাজনক হলেও সত্যি যে, তাদের প্রতিপক্ষকে রুখে দেওয়ার মত শক্তিমত্তা তাদের নিকট নেই, এবং সেজন্যই তারা এই ম্যাচটিতে ৪-০ গোলে ধরাসয়ী হয়ে বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে পড়বে বলেই আমাদের ধারণা।

    Share.
    Leave A Reply